রবিবার, মার্চ ২৯, ২০২০

সদরঘাট থেকে শুরু হচ্ছে সিয়াম-পরীর অ্যাডভেঞ্চার

  • Abashan
  • ২০২০-০২-১১ ১০:৩৪:১৭
image

পরিচালক আবু রায়হান জুয়েলের সরকারি অনুদান পাওয়া ‘অ্যাডভেঞ্চার অব সুন্দরবন’ সিনেমায় আবারও জুটি বাঁধছেন ঢাকাই সিনেমার জনপ্রিয় নায়ক সিয়াম আহমেদ ও চিত্রনায়িকা পরীমনি। আগামী ১৩ মার্চ থেকে সুন্দরবনের বিভিন্ন লোকেশনে সিনেমাটির শুটিং শুরু হবে। জনপ্রিয় কথাসাহিত্যিক ও শিক্ষাবিদ মুহাম্মদ জাফর ইকবালের ‘রাতুলের রাত রাতুলে দিন’ উপন্যাস অবলম্বনে তৈরি হচ্ছে শিশুতোষ এই সিনেমাটি। এই খবর বার্তা২৪.কমের পাঠকরা সবার আগে জেনেছেন চলতি মাসের ২ তারিখে।

 

আজ ১০ ফেব্রুয়ারি (সোমবার) সন্ধ্যায় রাজধানীর বিশ্ব সাহিত্য কেন্দ্রে সিনেমাটির আনুষ্ঠানিক ঘোষণা দেওয়া হয় এক অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। অনুষ্ঠানে ড. মুহম্মদ জাফর ইকবাল সিনেমাটির গল্প শোনান এবং কলাকুশলীর নাম ঘোষণা করেন।


অনুষ্ঠানে সিনেমাটির পরিচালক আবু রায়হান জুয়েল জানান, ‘আগামী ১৩ মার্চ সদরঘাট থেকে লঞ্চযাত্রার মধ্য দিয়ে সিনেমাটির শুটিং শুরু হবে। সুন্দরবন গিয়ে এ যাত্রা শেষ হবে। মাঝে ২৫ দিন লঞ্চে বিরতিহীনভাবে শুটিং হবে। ঢাকা, মংলা, সুন্দরবন এবং চাঁদপুর ও বরিশালের নদীপথের দৃশ্য এ সিনেমায় ধারণ করা হবে। এই কয়দিন থাকা, খাওয়া, ঘুমানো, শুটিং সবই হবে লঞ্চে। এরপর ঢাকায় ফিরব।’ এক দীর্ঘ বক্তব্যে সিয়াম আহমেদ সিনেমাটিতে যুক্ত হওয়ার গল্প বলার পাশাপাশি শুটিং শুরু প্রসঙ্গে বলেন, ‘২৫ দিনের এক যাত্রায় বন্ধু হিসেবে আমরা এই অ্যাডভেঞ্চারে যাচ্ছি। অ্যাডভেঞ্চারে কোন সমস্যায় পড়লে শিশু-বন্ধুরা সমাধান খুঁজে বের করবে। আশা করছি দারুণ হবে এই সুন্দরবনের অ্যাডভেঞ্চার। এছাড়া সর্বোচ্চ চেষ্টা থাকবে জাফর ইকবাল স্যারের গল্পকে সুন্দর করে ফুটিয়ে তোলার। আপনারা সবাই দোয়া করবেন।’

 


অনুষ্ঠানে পরীমনি বলেন, ‘নির্মাতা বলেছেন এটা শুটিং নয়, ২৫ দিনের একটা লঞ্চ ভ্রমণ। আমার কাছে বিষয়টিকে অ্যাডভেঞ্চারের মতো লাগছে।’ অনুষ্ঠানে ড. মুহম্মদ জাফর ইকবাল বলেন, ‘আমাদের এই সমাজকে পরিবর্তন করতে হলে ভালো কবিতা, ভালো চলচ্চিত্র নির্মাণ করতে হবে। সমাজ তথা শিশুদের বিকাশের জন্য ভালো চলচ্চিত্র নির্মাণ করতে হবে। এই সিনেমা শুটিংয়ে যেসব বাচ্চারা যাচ্ছো তাদের বলবো সঙ্গে নিজেদের পড়াশুনার বই-খাতা নিয়ে যেও; সেখানে তোমাদের তেমন কোন নেই।’

 

অনুষ্ঠানে মুহম্মদ জাফর ইকবাল, সিয়াম আহমেদ, পরীমনি, পরিচালক আবু রায়হান জুয়েল ছাড়াও সিনেমাটির সঙ্গে সংশ্লিষ্ট প্রায় সকলেই উপস্থিত ছিলেন। সিয়াম ও পরীমনি ছাড়াও সিনেমাটির অন্যান্য চরিত্রে অভিনয় করবেন শহীদুল আলম সাচ্চু, আজাদ আবুল কালাম, মুনিরা মিঠু, কচি খন্দকার, আশিষ খন্দকার ও এক ঝাঁক শিশুশিল্পী। ‘নসু ডাকাত কুপোকাত’ নামে ‘২০১৮-২০১৯ অর্থবছরে ৬০ লাখ টাকা সরকারি অনুদান পায় পরিচালক আবু রায়হান জুয়েলের সিনেমাটি। পরে নাম পরিবর্তন করে ‘অ্যাডভেঞ্চার অব সুন্দরবন’ রাখা হয়। মুহম্মদ জাফর ইকবালের উপন্যাস ‘রাতুলের রাত রাতুলের দিন’ অবলম্বনে এর চিত্রনাট্য করেছেন জাকারিয়া সৌখিন। সিনেমাটির জন্য প্রথমবার গানও লিখেছেন ড. মুহম্মদ জাফর ইকবাল।

 

সরকারি অনুদানের পাশাপাশি সিনেমাটির সহ প্রযোজক হিসাবে যুক্ত হয়েছে বঙ্গবিডি।


এ জাতীয় আরো খবর